top of page

Presenting 'ঝুমি এল চিড়িয়াখানায়' নতুন সংস্করণ

Updated: Oct 17, 2020



আমি মৃদুলা । ভালোবাসি বই পড়তে গান গাইতে ।বর্তমানে আছি বন্দরনগরী চট্টগ্রামে ।ছোটবেলা থেকেই বই এর প্রতি ভালোবাসা , সুয়োরানী-দুয়োরাণী, ডালিমকুমার, নীল কমল-লাল কমলের রঙিন দুনিয়ায় হারিয়ে যেতাম ।

সেখান থেকেই বই পড়া শুরু । করোনা মহামারীর দিনগুলোতে বাসায় বসে থাকতে থাকতে চিন্তা করলাম এই বই পড়ার অভ্যাসটা সবার মধ্যে ছড়িয়ে দিলে কেমন হয় ? আর সেই চিন্তা থেকেই আমার ইউটিউব চ্যানেল (Mehjad Mehrin) এবং বুকস্টাগ্রামের (booktrovert_mridula)যাত্রা শুরু ।এই প্লাটফর্মের মাধ্যমেই আমার পরিচিতি ঘটে ময়ূরপঙ্খির সাথে । তাদের ছোটদের জন্য লেখা অসাধারণ কিছু বইয়ের মধ্যে

"ঝুমি এল চিড়িয়াখানায়" বইটি নিয়ে কিছু কথা রইলো ।

 


 


শিশুদের পছন্দের বই ‘ঝুমি এল চিড়িয়াখানায়’ নতুন সংস্করণ এল বাজারে। বইটিতে এবার যুক্ত করা হয়েছে নতুন নতুন ছবি আর রং-বেরঙের হাতি, বাঘ, বানর, ময়ূর আরও কত কি। গল্পের ছলে ছোট্ট সোনামণিরা খুব সহজেই ধারণা করতে পারবে কাছে-দূরে, ভেতরে-বাইরে, উপর-নিচ, ডানে-বামে তথা নানান অবস্থানকে। গল্পের ছলে খুব সহজেই শিশুদের সামনে-পিছনে, ডানে-বামে প্রভৃতি অবস্থান চিনিয়ে দেওয়া যায়। ঝুমির এই গল্পটাও ঠিক তেমন।

  • ৪-৮ বছর বয়সী শিশুদের জন্য উপযোগী।

  • ৮.৫১১" ছবির বই, ২৮ পৃষ্ঠা



 

লেখক

নাজিয়া জাবীন

লেখালেখি শুরু করেছেন স্কুলের দেয়াল পত্রিকায়। ঘাসফড়িং, প্রজাপতির রঙিন পাখা, বৃষ্টির টুপটাপ শব্দ ও একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধ তাঁর প্রিয় বিষয়। তাঁর লেখা শিশুতোষ বইয়ের সংখ্যা ২৭। ‘জল পড়ে পাতা নড়ে’ শিশুতোষ পত্রিকাও সম্পাদনা করেন তিনি। নাজিয়া জাবীন দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিশুদের উপযোগী ব্রেইল পদ্ধতির বই প্রকাশের জন্য স্থাপিত স্পর্শ ব্রেইল প্রকাশনার প্রধান উদ্যোক্তা। বর্তমানে সিসিমপুর, ব্র্যাক, সেভ দি চিলড্রেন, রুম টু রিডের সঙ্গে লেখালেখি নিয়ে যুক্ত ।



চিত্রশিল্পী

এস এম রাকিবুর রহমান

জন্মস্থান পটুয়াখালী। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় চারুকলা অনুষদের ছাপচিত্র বিভাগ থেকে তিনি স্মাতকোত্তর সম্পন্ন করেছেন। বর্তমানে একটি দৈনিক পত্রিকায় কাজ করছেন। পত্রিকা এবং শিশু-কিশোরদের বইয়ের জন্য নিয়মিত আঁকছেন।

81 views0 comments

コメント


bottom of page